পাকিস্তানের বিপক্ষে আমার রক্ত গরম হয়ে যেত : শেবাগের স্মৃতিচারণ – News Vibe24

পাকিস্তানের বিপক্ষে আমার রক্ত গরম হয়ে যেত : শেবাগের স্মৃতিচারণ - DesheBideshe


নয়াদিল্লী, ০৪ আগস্ট – ক্যারিয়ারে পাকিস্তানের বিপক্ষে সব সময় ভালো খেলেছেন ভারতের সাবেক ওপেনার বীরেন্দ্র শেবাগ।

এর কারণ হিসেবে শেবাগ জানিয়েছেন, পাকিস্তানের বিপক্ষে মাঠে নামলেই নাকি তার রক্ত গরম হয়ে উঠত।

আন্তর্জাতিকে নিজের অভিষেক ম্যাচের স্মৃতিচারণ করতে গিয়ে সম্প্রতি এমন মন্তব্য করেন শেবাগ।

সম্প্রতি একটি রেডিও শো’তে ‘১৩ জাওয়াব নাহি’ নামক অনুষ্ঠানে প্রায় ২২ বছর আগের সেই অভিষেক ম্যাচের স্মৃতিচারণ করেন।

তিনি বলেন, ‘আমি যখনই পাকিস্তানের বিপক্ষে খেলেছি, স্বাভাবিকভাবেই আমার রক্ত গরম হয়ে যেতো। এ কারণেই ওদের বিপক্ষে আমি ভালো খেলেছি এবং আমার গড়ও অনেক ভালো।’

উল্লেখ্য, পাকিস্তানের বিপক্ষে কয়েকটি দুর্দান্ত রেকর্ড রয়েছে শেবাগের। শোয়েব-আফ্রিদিদের বিপক্ষে টেস্ট ক্রিকেটে চার সেঞ্চুরির সাহায্যে ৯১.১৪ গড়ে ১২৭৬ রান করেছেন তিনি। ওয়ানডেতে দুই সেঞ্চুরি ও ছয় ফিফটিতে ৩৪.৫০ গড়ে ১০৭১ রান করেছেন এ ডানহাতি ওপেনার। ট্রিপল সেঞ্চুরিও হাঁকিয়েছেন পাকিস্তানের বিপক্ষে।

এসব পরিসংখ্যান উল্লেখ করে শেবাগ জানান, কেন পাকিস্তানের বিপক্ষে মাঠে নামলেই তার রক্ত গরম হয়ে যেতো।

তিনি বলেন, ‘আমার বয়স তখন ২০-২১ হবে। আমি যখন ব্যাট করতে নামি তখন আফ্রিদি, শোয়েব, ইউসুফসহ পাকিস্তানের সব খেলোয়াড় গালি দিয়ে স্বাগত জানাচ্ছিল আমাকে। যেগুলোর বেশিরভাগ আমি আগে কখনও শুনিনি।আমি অল্প অল্প পাঞ্জাবি বুঝতাম। তাই তখন বুঝতে পারছিলাম যে তারা আমার দিকে গালির বৃষ্টি বর্ষাচ্ছে। কিন্তু আমার তেমন কিছুই করার ছিল না। কারণ সেটা আমার প্রথম ম্যাচ ছিল এবং আমি নিজেই নার্ভাস ছিলাম।’

সেই থেকেই পরে সুযোগ পেলে যে কোনো পাক বোলারদের ওপর চড়াও হয়েছেন শেবাগ।

ব্যাট চালিয়েই নাকি গালির জবাব দিয়েছেন। বললেন, ‘যখন ২০০৪ সালে পাকিস্তান সফরে গেলাম, তখন মুলতানে ট্রিপল সেঞ্চুরির মাধ্যমে আগেরবারের সব গালির প্রতিশোধ নিয়ে নেই আমি।’

সুযোগ পেলে দুই দেশের ক্রিকেট তারকারা একে অপরকে কোনো ছাড় দেন না। মাঠে ও মাঠের বাইরে স্লেজিংও চলে সমান তালে।

তেমনই একটি শিকার হয়েছিলেন ভারতের মারকুটে ওপেনার বীরেন্দ্র শেবাগ। মাঠে নামার সময় নাকি পাকিস্তানের তারকা শোয়েব আখতার, শহিদ আফ্রিদি, মোহাম্মদ ইউসুফরা তাকে গালির বৃষ্টি দিয়ে স্বাগত জানিয়েছিলেন।

অবশ্য ঘটনাটি আজ থেকে ২২ বছর আগে শেবাগের অভিষেক ম্যাচের।

সম্প্রতি একটি রেডিও শো’তে উপস্থিত থেকে সেই ঘটনারই স্মৃতিচারণ করলেন তিনি।

বললেন, ‘আমার বয়স তখন ২০-২১ হবে। আমি যখন ব্যাট করতে নামি তখন আফ্রিদি, শোয়েব, ইউসুফসহ পাকিস্তানের সব খেলোয়াড় গালি দিয়ে স্বাগত জানাচ্ছিল আমাকে। ওসব যেগুলোর বেশিরভাগ আমি আগে কখনও শুনিনি। আমি অল্প অল্প পাঞ্জাবি বুঝতাম। তাই তখন বুঝতে পারছিলাম যে, তারা আমার দিকে গালির বৃষ্টি বর্ষাচ্ছে। কিন্তু আমার তেমন কিছুই করার ছিল না। কারণ সেটা আমার প্রথম ম্যাচ ছিল এবং আমি নিজেই নার্ভাস ছিলাম।’

আফ্রিদি-শোয়েবদের সেই আচরণের বদলা নিয়েছেন বলে জানালেন শেবাগ। বললেন, ‘সেদিন কিছু না বললেও, পরে আমি যখন খেলোয়াড় হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হলাম, তখন বদলা নিতে ছাড়িনি। ২০০৪ সালে পাকিস্তান সফরে গেলাম, তখন মুলতানে ট্রিপল সেঞ্চুরির মাধ্যমে আগেরবারের সব গালির প্রতিশোধ নিয়ে নেই আমি।’

সূত্র : যুগান্তর
এন এইচ, ০৪ আগস্ট

(function(d, s, id){
var js, fjs = d.getElementsByTagName(s)[0];
if (d.getElementById(id)) return;
js = d.createElement(s); js.id = id;
js.src = “https://connect.facebook.net/bn_BD/sdk.js#xfbml=1&version=v3.2”;
fjs.parentNode.insertBefore(js, fjs);
}(document, ‘script’, ‘facebook-jssdk’));